বাবুল হোসেনের দেওয়া খাবারে বেঁচে আছে ২০টি কুকুর

প্রতিদিন রাস্তায় থাকা ২০-২২টি কুকুরকে খাওয়ান এক ব্যক্তি। কুকুরগুলো এক জায়গায় থাকে না বলে তিনি কুকুরগুলোর থাকার জায়গায় গিয়ে খাবার দিয়ে আসেন। কুকুরের প্রতি ব্যতিক্রমী এ ভালোবাসা দেখানো মানুষটির নাম মো. বাবুল হোসেন। তিনি বাস করেন ‍কুষ্টিয়া জেলার মিরপুর উপজেলার আমলা ইউনিয়নের কাকিলাদহ গ্রামে।

বাবুল হোসেন পেশায় একজন কাঠ ব্যবসায়ী। প্রতিদিন পরিশ্রমের মাধ্যমে তার উপার্জন। তা থেকে তিনি প্রতিদিন প্রায় ৩ থেকে ৪শ টাকা খরচ করেন কুকুরগুলোকে খাওয়ানোর জন্য। সে সঙ্গে নিজের মোটরসাইকেলের তেল খরচ করে কুকুরগুলোর থাকার ৫টি জায়গায় গিয়ে খাবার দিয়ে আসেন।

এ ঘটনাটি জানতে পেরে তার ওপর একটি ডকুমেন্টারি নির্মাণ করেছেন নূহু আব্দুল্লাহ। ভিডিওতে কুকুরগুলো সঙ্গে কাটানো অসাধারণ কিছু মুহূর্তের ছবি ধারণ করা গেছে। যা দেখলে মো. বাবুল হোসেনকেও কুকুরগুলো কতখানি ভালোবাসে তা বুঝতে পারা যায়।

মো. বাবুল হোসেনের কাছে জানতে চাওয়া হয়েছিল কেন তিনি কুকুরকে খাওয়ান? তার জবাব তিনি ভিডিওতে দিয়েছেন। তিনি কতদিন কুকুরগুলোকে খাওয়াবেন তাও জানতে চাওয়া হয়েছিল। তার জবাবও তিনি ভিডিওতে দিয়েছেন।

উল্লেখ্য, কেবল বাংলাদেশ নয়, সারা পৃথিবীর মানুষের সামনে বাংলাদেশের সাধারণ মানুষের মহানুভবতার দৃষ্টান্ত তুলে ধরতে ভিডিওটি ইংরেজি ভাষায় অনুবাদ করার চেষ্টা করা হয়েছে। পাশাপাশি বাংলা ভাষাও রয়েছে।

ডকুমেন্টারির ভিডিও লিঙ্ক এখানে দেওয়া হলো।

শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য