বান্দরবানের আলীকদমে ডায়রিয়ায় মৃত্যুর সংখ্যা বেড়ে দাঁড়ালো ১১

১৬ জুন ডায়রিয়া আক্রান্ত তিনজনকে সেনাবাহিনীর তত্ত্বাবধানে হেলিকপ্টারযোগে বান্দরবান সদরে নিয়ে আসা হচ্ছে। ছবি: নজরুল ইসলাম টিটু

বান্দরবানের আলীকদমে ডায়রিয়ায় মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়ালো ১১জনে। এর মধ্যে ১৬ জুন বুধবার সেনাবাহিনীর তত্ত্বাবধানে বিমানবাহিনীর হেলিকপ্টারে উপজেলার দুর্গম কুরুকপাতা থেকে ৩জন ডায়রিয়া আক্রান্ত রোগীকে বান্দরবান সদর হাসপাতালে নিয়ে আসা হয়েছে।

সেনাবাহিনীর সুত্র জানায়, গেল কয়েকদিন ধরে বান্দরবানের আলীকদম উপজেলার কুরুকপাতা ইউনিয়নের বিভিন্ন দুর্গম এলাকায় ডায়রিয়ার প্রকোপ দেখা দিয়েছে। এতে আক্রান্ত হয়ে বেশ কয়েজনের মৃত্যু হয়েছে। আর পুরো কুরুকপাতা ইউনিয়নে ডায়রিয়ায় প্রায় শতাধিক নারী পুরুষ আক্রান্ত হয়ে যাওয়ায় গুরতর অবস্থায় এক নারী ও ২শিশুকে হেলিকপ্টারে করে বান্দরবান সদরে নিয়ে আসা হয়েছে।

বান্দরবান সদরে নিয়ে আসা রোগীরা হচ্ছেন, মেনলে ম্রো (৫) আং চং ম্রো (৭০) ও রেপং ম্রো (১২) তারা সবাই আলীকদমের দুর্গম কুরুকপাতা ইউনিয়নের মাংরুম পাড়ার বাসিন্দা।

সূত্রটি আরো জানায়, পরিস্থিতি মোকাবেলায় পর্যাপ্ত জীবনরক্ষাকারী ঔষধ, পানি বিশুদ্ধকরণ ট্যাবলেট, খাওয়ার স্যালাইন, শুকনো খাবার, বিশুদ্ধ পানি দুর্গত এলাকায় পাঠানো হয়েছে এবং ডায়রিয়া আক্রান্তদের চিকিৎসা সহায়তা অব্যাহত রয়েছে।

আলীকদমের কুরুকপাতা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান ক্রাতং ম্রো জানান, ডায়রিয়া আক্রান্ত হয়ে গেল এক সপ্তাহে ৮জন মারা গেছে আর শতাধিক ব্যক্তি বিভিন্ন পাড়ায় আক্রান্ত হয়েছে।

শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য