রাতে প্রশান্তির ঘুম দিবে যেসব খাবার

আপনি জানেন কি, আপনার রাতের খাবার আপনার ঘুমের উপর প্রভাব ফেলতে পারে? আপনার ঘুমকে প্রশান্তিময় করে তুলতে পারেন খাবারের মাধ্যমে। আসুন দেখে নিই কি কি খাবারের মাধ্যমে এটি করা সম্ভব:

১. দুগ্ধ জাতীয় খাবারে ট্রিপটোফেন নামক পদার্থ রয়েছে। এটি এক ধরনের অ্যামিনো এসিড যা ভালো ঘুমের সহায়ক। এছাড়াও ডিম, বাদাম, বিভিন্ন দানাদার খাবার, কলা ট্রিপটোফেনের অন্যতম উৎস। তাই এই খাবারগুলো আপনাকে ভালো ঘুম হতে সাহায্য করে।

২. যেসব খাবার কার্বোহাইড্রেটে সমৃদ্ধ সেসব খাবারও ভালো ঘুমের সহায়ক হিসেবে কাজ করে। ‍যদি কারও ঘুমের সমস্যা থেকে থাকে, তাহলে স্বল্প আহার সেই সমস্যা দূর করতে সাহায্য করে। ভারী খাবার হজম প্রক্রিয়ার ব্যাঘাত ঘটায় যা ঘুমের জন্য খুবই অস্বস্তিকর।

৩. সন্ধ্যায় এক কাপ কফি রাতের ঘুমের বিঘ্ন ঘটাতে যথেষ্ঠ। শুধুমাত্র কফি না। স্বল্প ক্যাফেইনযুক্ত খাবারের কথা ভুললেও চলবে না, যেমন: চকলেট, চা, কোকাকোলা। ঘুমানোর ৪-৬ ঘন্টা পূর্বেই সব ধরনের ক্যাফেইন বর্জন করতে হবে।

৪. এছাড়াও কিছু ব্যথানাশক, ওজন হ্রাসকারী, অ্যালার্জি বা ফ্লু এর ঔষধে কিছু পরিমাণ ক্যাফেইন থাকে যা ঘুমের ব্যাঘাত ঘটায়। এসব ঔষধ খাবার পূর্বে ঔষধের গায়ের লেবেল দেখে নেয়া জরুরি। সম্ভব হলে এসব ঔষধ এড়িয়ে চলাই ভালো।

৫.অ্যালকোহল তাড়াতাড়ি ঘুমিয়ে পড়তে সাহায্য করে। কিন্তু ভালোভাবে ঘুমাতে সাহায্য করে না। বারবার ঘুমের বিঘ্ন ঘটায় যা মাথাব্যথার কারণ হতে পারে। তাই ভালো ঘুমের জন্য ঘুমের ৪-৬ ঘন্টা আগ থেকে অ্যালকোহল গ্রহণ না করাই উত্তম।

৬. অতিরিক্ত মসলাযুক্ত খাবার বুকের জ্বালাপোড়ার কারণ হতে পারে যা ঘুমকে বিপর্যস্ত করতে পারে। তাই ঘুমানোর অন্তত ৪ ঘন্টা পূর্বে এই ধরনের খাবার খাওয়া উচিত।

শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য